ঢাকা দুপুর ২:১৭, সোমবার, ২৫শে মে, ২০২০ ইং, ১১ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

নরসিংদীতে গৃহবধু হত্যারবিচারের দাবীতে মানববন্ধন

স্বামী কর্তৃক স্ত্রী মরিয়ম আক্তার (১৯) নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোদ্ধ করে হত্যা ও লাশ গুমের সাথে জড়িত থাকা সকল আসামী গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল রবিবার দুপুরে নরসিংদী প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে নিহতের পরিবারের সদস্য ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিসহ ৩ শতাধিক মানুষ এ মানববন্ধনে অংশ গ্রহণ করে।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, রায়পুরা উপজেলার চর আড়ালিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান সরকার, সাবেক চেয়ারম্যান নুরুজ্জামান সরকার, ওই ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি সজিব সরকারসহ অন্যান্যরা।
বক্তৃাগণ ঘটনার সাথে জড়িতদের মধ্যে যারা এখনো গ্রেফতার হয়নি তাদেরকে অবিলম্বে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী জানান।
নিহতের পিতা শাহ আলম জানায়, তার মেয়ে মরিয়ম আক্তারের স্বামী রাসেল মিয়া বিবাহিত স্ত্রীকে ঘরে রেখে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে তাদের সংসারে দীর্ঘদিন যাবত দ্বন্দ চলে আসছিল।

এরই জের ধরে গত ৩ জুলাই স্ত্রী মরিয়ম বেগমকে গলায় গামছা প্যাঁচিয়ে শ্বাসরোদ্ধ করে হত্যার পর তার লাশ মেঘনা নদীতে কচুরিপানার নীচে গুম করে রাখে স্বামী রাসেল ও তার সহযোগীরা। পরে পুলিশ স্বামীরাসেলকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করলে হত্যার পরিকল্পনা ও হত্যা করে লাশ গুমের কথা স্বীকার করে রাসেল। পরে সে আদালতেও স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী প্রদান করেছে। এ ঘটনায় নিহত মরিয়মের বাবা মো. শাহ আলম বাদী হয়ে রায়পুরা থানায় অভিযুক্ত স্বামী রাসেল সহ ৬ জনকে আসামী করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

নিহত মরিয়ম আক্তার রায়পুরার চরাঞ্চলের চরআড়ালিয়া গ্রামের মো. শাহ আলমের মেয়েএবং অভিযুক্ত স্বামী মো. রাসেল মিয়া একই গ্রামের নয়ন মিয়ার ছেলে।
বিজনেস বাংলাদেশ-/ ইএম

এ বিভাগের আরও সংবাদ