ঢাকা দুপুর ২:৪৫, শনিবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং, ১১ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

চীন ফেরত বাংলাদেশিরা পর্যবেক্ষণে থাকবে

করোনা ভাইরাসের কারণে চীনের উহান শহরে আটকা পড়া বাংলাদেশিদের দেশে ফেরত আনার পরও পর্যবেক্ষণে রাখা হবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন।

তিনি বলেন, ‘করোনা ভাইরাসের কারণে চীনের উহান শহরে আটকা পড়েছেন বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশি। তাদের ফেরত আনার প্রক্রিয়া চলছে। তবে দেশে আসার আগে ওই বাংলাদেশিদের কেউ করোনা ভাইরাসের বাহক কি না তা পর্যবেক্ষণ করা হবে। দেশেও পর্যবেক্ষণে রাখা হবে। আমরা চাই না, আমাদের এখানেও এটা ছড়িয়ে পড়ুক।’

বুধবার রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় ঢাকা-সিলেট চার লেন রোড তৈরির পরিকল্পনা নিয়ে আয়োজিত এক মতবিনিময় সভা শেষে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কথা বলেন।

উন্নয়ন প্রকল্পের বিভিন্ন বিষয়ে সিলেটের মন্ত্রী, সংসদ সদস্য ও রাজনীতিবিদদের সঙ্গে মতবিনিময়ে এই সভার আয়োজন করা হয়।

চীনে অবস্থান করা অনেকেই তাড়াতাড়ি ফেরার আকুতি জানাচ্ছেন এ বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা আগ্রহীদের ফিরিয়ে আনতে প্রস্তুত। সব রকমের ব্যবস্থাও নেয়া হয়েছে। তবে আমরা যতদূর তথ্য পাচ্ছি বাংলাদেশিরা ওখানে থাকলে ভালো সেবা পাবেন। ভাইরাস না ছড়ানোর বিষয়ে চীন খুবই কড়া।’

তিনি আরো বলেন, ‘এদেশ থেকে যেসব চীনা নাগরিক চীনে সম্প্রতি যাতায়াত করেছেন, তাদের তথ্য সংগ্রহ করছি। তাদের কেউ যদি আক্রান্ত না হন, তাহলে তাদের স্বাভাবিক চলাফেরায় কোনো বাধা নেই।’

ঢাকা-সিলেট চার লেন রোড প্রকল্প প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ‘২০২৩ সালের মধ্যে ঢাকা-সিলেট চার লেন রোডের কাজ শেষ হবে। আগামী ৫০ বছরে যেন এ রুটে যাতায়াতের সমস্যা না হয়, সেই পরিকল্পনা নিয়ে ঢাকা-সিলেট রোড তৈরি করা হবে।’

মতবিনিময় অনুষ্ঠানে প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী ইমরান আহমদ, বেসামরিক বিমান প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী, সাবেক শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ, মৌলভীবাজার-২ আসনের সাংসদ সুলতান মো. মনসুর আহমদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

বিজনেস বাংলাদেশ/এম মিজান

এ বিভাগের আরও সংবাদ
//graizoah.com/afu.php?zoneid=3354715