আজ বুধবার | ১৭ জুলাই, ২০১৯ ইং
| ২ শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ | ১২ জিলক্বদ, ১৪৪০ হিজরী | সময় : রাত ২:২৭

মেনু

রাঙ্গামাটিতে সেতু চাকমার পাশে জেলা প্রশাসক

রাঙ্গামাটিতে সেতু চাকমার পাশে জেলা প্রশাসক

সুপ্রিয় চাকমা শুভ, রাঙ্গামাটি
বৃহস্পতিবার, ১১ জুলাই ২০১৯
৯:০২ অপরাহ্ণ
22 বার

রাঙ্গামাটির বরকলে কিডনী রোগে আক্রান্ত সেতু চাকমার চিকিৎসার্থে নগদ দশ হাজার টাকার চেক অনুদান দিয়েছেন রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসক মামুনুর রশিদ। বৃহস্পতিবার সকালে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সেতু চাকমার বাবাকে চেক প্রদান করেন জেলা প্রশাসক। এসময় উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সাংবাদিক বিহারী চাকমা, সাংবাদিক ও হিলর ভালেদী এবং হিলর প্রোডাকশনের সভাপতি সুপ্রিয় চাকমা (শুভ) ও হিলর ভালেদী সংগঠনের সদস্য মিনা চাকমা।

জানাযায়, দেড় বছর ধরে কিডনী রোগে আক্রান্ত সেতু চাকমা (১৩) ভূবন বিজয় চাকমার একমাত্র ছেলে। তার একটি কিডনী সম্পুর্ন নষ্ট হয়ে গেছে। বাকী একটা কিডনীও অকেজো হয়ে যাচ্ছে। নতুন করে কিডনি প্রতিস্থাপন করতে ৪-৫ লক্ষ টাকা লাগতে পারে। পুরোপরি সুস্থ হতে ১০ থেকে ১২ লক্ষ টাকার প্রয়োজন। সেতু চাকমাকে বাঁচিয়ে তুলতে তার গর্ভধারিনী মা তার একটা কিডনী দান করে সন্তানের জীবন ফিরিয়ে দিতে চান। সেতু চাকমার নিজবাড়ি রাঙ্গামাটি জেলার বরকল উপজেলার বরকল সদর কলেজ পাড়াতে। সেতু চাকমা বরকল মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে ৭ম শ্রেণীতে পড়ছে। নিষ্পাপ ছেলেটির জীবন বাঁচাতে সকলের সহযোগিতার প্রাথনা করেছেন ভূবন বিজয় চাকমা।

রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসক মামুনুর রশিদ জানান, রাঙ্গামাটিতে জেলা পরিষদসহ অন্যান্য প্রতিষ্ঠান থেকে যতটুক সহযোগিতা প্রদান করা সম্ভব জেলা প্রশাসকের পক্ষ থেকে মোটা অংকের টাকা সহযোগিতা করা তেমন সুযোগ নেই। মানুষের জন্য মানুষ। অসহায় ও অসুস্থ রোগীদের সহযোগিতা করা জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে যতটুকু দেওয়া সম্ভব আমরা তা করি। জেলা প্রশাসক আরো বলেন, রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদে যত ফান্ড আছে অন্যান্য প্রতিষ্ঠানে তা নেই। জেলা পরিষদ চাইলে অনেক কিছু করতে পারতো। সেহেতু আমি যদি রাঙ্গামাটি জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হতাম তাহলে রাঙ্গামাটিতে আর কোন গরীব থাকতো না। অসহায় মানুষের পাশে সর্র্বদা সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিতাম।

সাংবাদিক বিহারী চাকমা জানান, সেতুর বাবা যখন আমাকে বললেন, সন্তানের জীবনে আলো জ¦ালাতে গর্ভধারিনী মা একটা কিডনী দান করবেন তখনই আমার দু;চোখ থেকে পানি চলে আসে। ভূবন বিজয় চাকমাকে আর্থিক ভাবে সহযোগিতা করতে না পারলেও বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করা যায়্। যার কারনে আমি দায়িত্ব পালন করেছি মাত্র। অসহায়কে সহযোগিতা করার একটা সুযোগ হয়েছে এবং দায়িত্ব ও কর্তব্য মনে করে আমি সেতু চাকমার জন্য ভূবন বিজয় চাকমাকে সহযোগিতা করতে পেরে নিজেকে অনেক ভাগ্যবান মনে করছি।

সাংবাদিক সুপ্রিয় চাকমা (শুভ) জানান, যারা অসহায় এবং গরীব তাদের পাশে দাঁড়ানো প্রতিটি মানুষের দরকার। আমি সেতু চাকমার চিকিৎসার্থে তার বাবাকে সহযোগিতা করা দায়িত্ব পালন করেছি মাত্র। তবে ডিসি স্যার যদি আন্তরিক না হতেন তাহলে তিনি সহযোগিতার হাত বাঁড়িয়ে দিতেন না। রাঙ্গামাটিবাসী খুবই ভাগ্যবান যে, বিপদের সময়ে ডিসি স্যারকে কাছে পায়। সেহেতু আমি বলবো পৃথিবীতে এখনো মানবতা বেঁচে আছে।

অসুস্থরোগীর বাবা ভূবন বিজয় চাকমা জানান, দেড় বছর ধরে আমার ছেলে কিডনী রোগে আক্রান্ত হয়ে এখন ঢাকার একটি হাসপাতালে ভর্তি হয়ে আছে। ডাক্তার বলেছেন,অপারেশন করাতে ৪ থেকে ৫ লক্ষ টাকা লাগবে। পুরোপরি সুস্থ হতে ১০ থেকে ১২ লক্ষ টাকা লাগতে পারে। এত টাকা জোগাড় করা গরীব বাবার পক্ষে সম্ভব নয়। আমার বিপদের সময়ে সাংবাদিক বিহারী চাকমা ও সাংবাদিক, সংগঠন সুপ্রিয় চাকমা (শুভ) দাদার সহযোগিতায় আজ আমি ডিসি স্যারের আন্তরিকতার কারনে আমি তার থেকে সহযোগিতা পেয়েছি।আমি সকলের কাছে অনুরোধ জানাচ্ছি যে যতটুকু পারেন আমার ছেলের চিকিৎসার জন্য সহযোগিতার পাশে দাঁড়াতে।

সেতু চাকমার চিকিৎসার জন্য যারা সহযোগিতা করতে চান আপনার নিচের বিকাশ নাম্বারে সহযোগিতা পাঠাতে পারেন। বিকাশ নাম্বার -০১৬৯০১০৭১৪৮(রোগীর বাবা)।

বিবি/ইএম

 

রবিবারেই থেমে যাবে বৃষ্টি
২১ অক্টোবর ২০১৭ 406580 বার

সুষমা স্বরাজ ঢাকায়
২২ অক্টোবর ২০১৭ 404888 বার

কাঁদলেন মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ
০৪ অক্টোবর ২০১৭ 356432 বার